অ্যাপ্লিকেশন বা কাজে বিড করার আগে যে ১০ টি জিনিস জানতে হবেঃ

১. বিড করার আগে দেখে নিন বাইয়ারের রেটিং আর পেমেন্ট মেথড (Buyer Rating & Payment Method)। বায়ারের রেটিং ভালো না হলে কিংবা তাঁর পেমেন্ট মেথড ভেরিফাইড না হলে উক্ত কাজে অ্যাপ্লিকেশন করা ঠিক হবেনা।

২. খুব বেশি দক্ষতার প্রয়োজন হয় এমন কোন কাজে নতুনরা অ্যাপ্লিকেশন করবেন না। তাছাড়া আপনার চেয়ে খুব দক্ষ ফ্রিল্যান্সাররা যেখানে প্রতিযোগিতা করছে সেখানে না যাওয়াই ভাল, সেখানে অপ্রয়োজনে আপনার সময়ের অপচয় হবে।

৩. দেখে নিন কতজনকে ইন্টারভিউতে ডাকা হয়েছে। ৪ থেকে ৫ জনকে ইতিমধ্যে ইন্টারভিউতে ডাকা হয়ে গেলে সেই কাজটি পাওয়ার সম্ভাবনা খুবই ক্ষীণ।

৪. করতে পারবেন না এমন কোন কাজে কোনভাবেই অ্যাপ্লিকেশন করতে যাবেন না। এতে আপনার সময় যেমন নষ্ট হবে তেমনি নিজের উপর আস্থাও কমে আসবে, হতাশ হয়ে পড়ার সম্ভাবনা বেশি থাকবে।

৫. অ্যাপ্লিকেশন (Before Applying the Job) করার আগে অবশ্যই আপনার প্রোফাইলটাকে ভাল করে সাজাতে হবে, এটি এমনভাবে উপস্থাপন করতে হবে যাতে বায়াররা আপনার প্রোফাইল দেখে ধারণা করতে পারে আপনি একজন প্রফেশনাল এবং দক্ষ কর্মী। প্রোফাইলে অবশ্যই আগে করা কাজের পোর্টফোলিও থাকতে হবে।

৬. কাজ পাওয়ার জন্য কভারলেটার খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এটা লেখার সময় তাই আপনাকে সচেতনভাবে লিখতে হবে। কাজের বর্ণনার সাথে মিল রেখে অ্যাপ্লিকেশন বা কাভারলেটারটি লিখবেন। তাঁকে এই কাভার লেটারটির মাধ্যমে বোঝাতে হবে আপনি এই কাজটি পারবেন, কিভাবে করবেন, কত সময় লাগবে এবং কিভাবে তাঁর কাছে রিপোর্টিং করবেন। সবচেয়ে ভালো হয় অ্যাপ্লিকেশনের সাথে আপনার একই ধরণের কাজের ফাইল যুক্ত করে দিতে পারলে।

৭. বাংলাদেশি নতুন ফ্রিল্যান্সাররা একটা ভুল করেন। তাঁরা কাজ পাওয়ার জন্য বায়ারকে ইমোশনালি ব্ল্যাকমেইল করার চেষ্টা করেন। বোঝাতে চান এই কাজ ছাড়া তিনি খুব বিপদে আছেন, তার পরিবার অর্থকষ্টে ভুগছে। সুতরাং এই কাজটি তার খুবই দরকার। সাবধান, এই কাজটি কোনভাবেই করতে যাবেন না। আপনি আপনার দক্ষতাকেই বায়ারের কাছে বড় করে দেখাবেন।

৮. কভারলেটারের এ অহেতুক কথা লিখে বড় করবেন না। এতে বায়াররা কাভার লেটারকে টেমপ্লেট টাইপের লেখা ভাবতে পারে, না পড়ার সম্ভাবনাই অনেক বেশি।

৯. প্রাথমিক ভাবে সহজ কাজে অ্যাপ্লিকেশন করুন তবে প্রজেক্টের মূল্য বাজার মূল্যের চেয়ে অনেক বেশি কমানোর চেষ্টা করবেন না। কম মূল্য দিলে বায়ার কর্তৃক কাজ দেয়ার সম্ভাবনা বেশি এটি কোনভাবেই ভাববেন না। বরং এতে আপনার স¤পর্কে বায়ার নেতিবাচক ধারণা পোষণ করবে।

১০. আর হ্যা, যত পারুন অনলাইনে থাকার চেষ্টা করুন। নতুন কোন প্রজেক্ট সাইটে প্রকাশিত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে অ্যাপ্লিকেশন করার চেষ্টা করুন। তবে কাজ পাওয়ার সম্ভাবনা বেশি।